এ বছর হাজীগঞ্জ উপজেলায় ২৭টি মণ্ডপে দুর্গাপূজা হবে

হাজীগঞ্জ প্রতিনিধি :

হাজীগঞ্জে দুর্গা প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত মৃৎ শিল্পীরা। সময় যত ঘনিয়ে আসছে মন্দির ও ম-পে প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ততা ততই বাড়ছে মৃৎশিল্পীদের। মৃৎশিল্পীর নিপুণ হাতের ছোঁয়ায় তৈরি হচ্ছে দুর্গতিনাশিনী দেবী দুর্গা এবং তার সাথে থাকা লক্ষ্মী, সরস্বতী, গণেশ, কার্তিক ও অনিষ্টকারী অসুরসহ বিভিন্ন দেব-দেবীর মূর্তি।

এ বছর হাজীগঞ্জ উপজেলায় ২৭টি ম-পে দুর্গাপূজা হবে। দুর্গোৎসবকে সামনে রেখে বাংলাদেশ পূজা উদ্যাপন পরিষদ হাজীগঞ্জ শাখা ব্যাপক প্রস্তুতি হাতে নিয়েছে। উপজেলার কয়েকটি পূজা ম-প ঘুরে দেখা যায়, প্রতিমা তৈরির কাজে ব্যস্ত মৃৎ শিল্পীরা। হাজীগঞ্জের মকিমাবাদ শ্রী শ্রী রামকৃষ্ণ সেবাশ্রম ও দি বিবেকানন্দ বিদ্যাপীঠ পূজা ম-পে গিয়ে কথা হয় মৃৎশিল্পী বাবুল পালের সাথে।

তিনি ফরিদগঞ্জ উপজেলার আইটপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। বাবুল পালের দলে ৮জন কারিগর রয়েছে। এ বছর বাবুল পাল দেশের বিভিন্ন স্থানে ২৬টি পূজার প্রতিমা তৈরির কাজ পেয়েছে। বাবুল পাল প্রায় ৪৪ বছর ধরে প্রতিমা তৈরি করছেন কোনো প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ছাড়াই। তার পূর্বপুরুষরাও একই কাজ করতেন। বংশ পরম্পরাগত মৃৎ শিল্পী হয়ে উঠে বাবুল পাল।

দুর্গাপূজার সময় আমাদের ব্যস্ততা অনেক বেড়ে যায়। দুই মাস আগে থেকেই প্রতিমা তৈরির কাজ শুরু করি। এ বছর চাঁদপুর ও চট্টগ্রামের বিভিন্ন পূজা ম-পে ২৬টি প্রতিমা সেট তৈরির কাজ পেয়েছি। প্রতি সেটে দুর্গার সাথে রয়েছে অসুর, সিংহ, মহিষ, গণেশ, সরস্বতী, কার্তিক ও লক্ষ্মী প্রতিমা।

 

সময় নিউজ২৪.কম/এমএম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *