চাঁদপুর জেলায় বিএনপির ৩ প্রার্থীর নির্বাচন বর্জন

কাজী মোরশেদ আলম
চাঁদপুর জেলায় বিএনপির ৩ প্রার্থীর নির্বাচন বর্জন। সংঘর্ষ, পুলিশ ও ম্যাজিস্ট্রেটের গাড়ি ভাংচুর, বসতবাড়ি, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে আগ্নিসংযোগের মধ্য দিয়ে নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় কমপক্ষে ৫০জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে ৪ জনকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে। নির্বাচন পর্যবেক্ষণকালে হাজীগঞ্জের টোরাগড় ইস্কুলের পাশে বিএনপি সমর্থকদের হামলায় দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠের প্রধান সম্পাদক ও চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি কাজী শাহাদাত এবং কালের কণ্ঠের হাজীগঞ্জ উপজেলা প্রতিনিধি কামরুজ্জামান টুটুল আহত হয়েছেন। এ সময় কাজী শাহাদাতকে বহনকারী প্রাইভেটকারটি ভাংচুর করে বিএনপি সমর্থকরা। হাইমচর উপজেলায় উত্তর আলগী ইউনিয়নের ছৈয়াল বাড়ির সামনে বিএনপির সমর্থকরা জড়ো হলে পুলিশ ধাওয়া করে। এ সময় উচ্ছৃঙ্খল যুবকরা পুলিশের গাড়ি ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগ করে। তারা আওয়ামী লীগ সমর্থক স্থানীয় ইউপি সদস্য সফিক ও তার ভাই আব্দুল মান্নান আখন্দের ঘরে অগ্নিসংযোগ করে। একই সময় সফিকের ভাগিনার মুদি দোকানেও হামলা হয়।
এদিকে দুপুর থেকে বিকেল ৩টা পর্যন্ত চাঁদপুর-২ আসনের বিএনপির প্রার্থী ড. জালাল উদ্দিন, চাঁদপুর-৪ আসনের বিএনপির প্রার্থী মো. হারুনুর রশিদ, চাঁদপুর-৫ আসনের বিএনপির প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার মমিনুল হক পৃথক সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে তারা নির্বাচন বর্জন করেছেন।

সময়নিউজ২৪.কম 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *