নড়াইলের পল্লীতে আবারো কিশোরীকে ধর্ষণ

উজ্জ্বল রায় নড়াইল থেকেঃ 
নড়াইলের পল্লীতে আবারো কিশোরীকে ধর্ষণ জ্ঞান হারিয়ে ফেলে পাঁচজন। জেলার জয়পুর ইউনিয়নের চরআড়িয়ারা গ্রামে কিশোরী (১৪) ধর্ষণের অভিযোগে পাঁচজনের নামে মামলা দায়ের হয়েছে। ভূক্তভোগী কিশোরীর বাবা বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। উজ্জ্বল রায় নড়াইল থেকে জানান, এদিকে নড়াইল সদর হাসপাতালে মেয়েটির ডাক্তারি পরীক্ষা হয়েছে এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে। মেয়েটি মাদরাসায় অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত পড়ালেখা করেছে।
মামলার বিবরণ এবং ভূক্তভোগী মেয়েটির পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, রোববার (১২ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় লোহাগড়ার চরআড়িয়ারা গ্রামে চাচাবাড়ি থেকে নিজবাড়িতে ফেরার পথে ওই কিশোরীকে একই গ্রামের আবুল কালাম মোল্যার ছেলে আল আমিনসহ (১৮) তার সহযোগীরা পথরোধ করে পাশের ঘাসবনে নিয়ে মুখ বেঁধে গণধর্ষণ করে।
এক পর্যায়ে মেয়েটি জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। পরবর্তীতে রাত ৩টা ৪০ মিনিটের দিকে ভূক্তভোগী মেয়েটিকে তাদের বাড়ির উঠানে ফেলে যায়। এ ঘটনায় আল-আমিনসহ তার সহযোগী শিহাব মোল্যা, মুকুল মোল্যা, জাহাঙ্গীর মোল্যা ও ইয়াসিন শেখের নামে মামলা হয়েছে। এদের সবার বাড়ি চরআড়িয়ারা গ্রামে।
এ ব্যাপারে নড়াইলের লোহাগড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আমানুল্লাহ আল বারী বলেন, সোমবার (১৩ জানুয়ারি) ভূক্তভোগী কিশোরীর বাবা বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
সময় নিউজ২৪.কম/এমএম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *