নড়াইল জেলার অপরাধ দমনে দিনরাত নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে পুলিশ সুপার জসিম উদ্দিন

DreamHost

উজ্জ্বল রায়, নড়াইল জেলা প্রতিনিধিঃ

জঙ্গীবাদ-সন্ত্রাস-চুরি-ডাকাতি-বাল্য-বিবাহ-ভূমিদস্যু-জুয়া-ইয়াবা-পারিবারিক কলহসহ সকল প্রকার অপরাধ থেকে জেলা কে মুক্ত করতে তার নিজস্ব ছক আঁকানো নানান কৌশল নড়াইল জেলা”কে অপরাধ মুক্ত করতে ও অপরাধ ধমনে দিনরাত নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। অবলম্ভন করে অল্প দিনের মধ্যেই নড়াইলবাসী”র প্রিয় মুখ পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। সুনাম অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন তিনি।

আমাদের নড়াইল জেলা প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায় জানান, তিনি নড়াইল বাসীর প্রিয় পুলিশ অফিসার হিসেবে সুক্ষ্যাতী অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন।অপরাধ দমনে সার্বিক নিরাপত্তাদান ওকর্মতৎপরতা বৃদ্ধির মাধ্যমে পুলিশের সেবার মান কে আরও ত্বরান্বিত করে মানুষের কল্যানে পৌঁছে দিতে জনপ্রতিনিধি, সংবাদকর্মী, গ্রাম পুলিশ ও পুলিশিং কমিটি”র সহযোগিতা নিয়ে ব্যাপক সাহসীকতার সাথে সকল অপরাধ ও বিভিন্ন সমস্যা মোকাবেলা করে ইতি মধ্যে পুলিশি সেবার মান সর্বসাধারণের কাছে পৌছে দিয়ে সাড়াজাগানো ব্যাপক আলোচিত হয়ে উঠেছেন নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। অত্যন্ত সুকৌশলী দক্ষতায় নড়াইল বাসীর সাথে ভালো সুসম্পর্ক গড়েতোলে‘ পুলিশ জনগনের সেবক, সেবাই পুলিশের ধর্ম’ তা প্রমাণ করতে তিনি সক্ষম হয়েছেন।

জনগণের নিরাপত্তা উপযোগী নড়াইলকে বিভিন্ন অপরাধ থেকে মুক্ত করে আধুনিকে পরিণত করতে তিনি এবং তার নেতৃত্বে থানা পুলিশ দিনরাত নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি নড়াইল জেলায় যোগদানের পর জেলার চিত্র পরিবর্তন করে নড়াইল বাসীকে দেখাতে সক্ষম হয়েছেন।

বর্তমানে‘ পুলিশ জনগণের সেবক, সেবাই পুলিশের ধর্ম’ নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। এর নেতৃত্বে তা অক্ষরে অক্ষরে পালন করছেন চারটি থানায় কমরত ওসি সহ আরও অন্যান্য পুলিশ কর্মকরা কর্মচারিরা।

যোগদানের পরে থানায় দালালী লক্ষনীয় ভাবে কমেছে যাতে সাধারণ মানুষ নির্ভয়ে থানায় প্রবেশ করে সুষ্ঠুভাবে বিচার পাচ্ছেন এমনকি থানার ভিতর বাহিরের পরিবেশ সহ অনেক কিছুই পরিবর্তন হয়েছে। কমেছে রাজনৈতিক প্রভাব। গা ডাকা দিতে শুরু করেছে বিভিন্ন ধরনের অপরাধীরা। এতে করে বন্ধু সুলভ ও জনমুখী সেবায় পুলিশের ভাবমূর্তি সমুন্নত হচ্ছে। শান্তিতে জীবন যাপন করছেন জেলা বাসী।

সুদক্ষ্য নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। তার কৌশলী বুদ্ধিমত্তা দিয়ে অপরাধ দমনের ফলে জনমনে ফিরেছে স্বস্তি। থানা পুলিশ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, জনবহুল এলাকার, জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাস, বাল্য বিবাহ, জুয়া, পারিবারিক কলহ সহ বিভিন্ন অপরাধ থেকে জেলাকে মুক্ত রাখতে নিয়মিত জনসচেতনতা মূলক স্থানীয় সাথে আলোচনা করেন তিনি।যার সুফল ভোগ করছেন সকল সাধারণ জনগণ।

দায়ত্বশীলতা সঠিক দিক নির্দেশনা ও কর্মতৎপরতায় বিপুল পরিমাণ বিভিন্ন প্রকার মাদক উদ্ধার সহ মাদক ব্যবসায়ী আটক, চুরি হওয়া চোর সহ মোটরসাইকেল উদ্ধার, অস্ত্র সহ বেশ কয়েকজন আন্তঃ জেলা ডাকাত কে আটক করে আইনের আওতায় আনতে সক্ষম হয়েছে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। তিনি অপরাধীদের কাছে একটি মূর্ত আতঙ্কের নাম বলে ব্যাপক প্রচারণা পেয়েছেন।

নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। তিনি যোগদানের পর যেকোনো অপরাধীকে আটক, ছোট-বড় সকল মামলার রহস্য উদঘাটন করে অপরাধীদের অতি অল্প সময়ে আইনের আওতায় আনতে সমর্থ হয়েছেন।

তার একান্ত পরিশ্রম, মেধা,ও দায়িত্বশীল নির্দেশনা ও সার্বিক তৎপরতায় সব ধরনের অপরাধী কে আটক করতে সক্ষম হয়েছেন। অল্পসময়ের ব্যাপক আলোচিত নড়াইলের পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)। বলেন আমরা আইনের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা বোধ রেখে, দেশ ও দেশের মানুষ কে ভালবেসে দিক নির্দেশনায় নিজের দ্বায়িত্ব ও কর্তব্য পালন করে যাচ্ছি।

আমরা জনগনের সেবক, আমরা আমাদের নীতিতে অটল। অপরাধী যেই হোক না কেন আমরা কাওকে ছাড় দেইনি ছাড় দেবোনা বলে তিনি আরও অপরাধীদের ধরে আইনের আওতায় আনতে আমরা পুলিশ বদ্ধপরিকর, ইতিমধ্যেই তা আপনারা অবগত হয়েছেন।

সমাজের অপরাধ নামের ব্যাধি নির্মুলে সকলেই এগিয়ে আসতে হবে, আমাদের কে সহযোগিতা করতে হবে তাহলেই সমাজ থেকে অপরাধের মূল শিকড় উপড়ে ফেলা সম্ভব হবে বলে আমি মনে করি। জঙ্গীবাদ, সন্ত্রাস, চুরি-ডাকাতি-বাল্য-বিবাহ-ভূমিদস্যু-জুয়া-ইয়াবা বিরোধী বিশেষ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানান।
DreamHost

সময় নিউজ২৪.কম/এমএম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *