পানি নেই হিলি হাসপাতালে, দুর্ভোগ চরমে রোগীরা 

মোসলেম উদ্দিন, দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ
দিনাজপুরের হাকিমপুর (হিলি) স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মহিলা ওয়ার্ডে পানি না থাকায় চরম ভোগান্তিতে রোগীরা। দুই থেকে তিন যাবৎ পানি নেই, খুব কষ্ট পোহাতে হচ্ছে। এমনটি বলে আভিযোগ ভুক্তভোগী রোগীদের।
মহিলা ওয়ার্ডের ২৮ নং বেডের রোগী আঁখলিমা বেগম বলেন, দুই থেকে তিন যাবৎ আমাদের এই ওয়ার্ডে পানি নেই। কয়েক দিন যাবৎ খুব কষ্টে আছি। তাই নিরুপায় হয়ে আজ বাড়িতে চলে যাচ্ছি।
২৬ নং বেডের কহিনুর বেগম বলেন, আমি অসুস্থ মানুষ, পানি নিতে বার বার নিচে যেতে হচ্ছে। বাথরুমের জন্য অন্য ওয়ার্ডে যাচ্ছি।
১৪ নং বেডের রোগীর মেয়ে পরিবানু বলেন, হাসপাতালের লোকজনকে বার বার বলার পরও পানির কোন ব্যবস্থা করছে না। আমার মা বয়স্ক অসুস্থ মানুষ, তাকে নিয়ে অন্য ওয়ার্ডে নিয়ে যাওয়া,আসা বড় কষ্টকর হয়ে দাঁড়িয়েছে। হাসপাতালের একজন লোক বলছেন এটা ঠিক করতে,তিনি বলেছেন ১০ থেকে ১৫ দিন সময় লাগবে।
২৪ নং বেডের মল্লিকা বেগম বলেন, এতো কি কষ্ট করা যায়। অসুখ মানুষ, শরীর চলে না।তার পর আবার পানি ঢোলায় করতে হচ্ছে। থাকবো না, চলে যাবো।বাড়িতেই ভাল থাকবো।
মহিলা ওয়ার্ডের নার্স শিরিনা আক্তারের নিকট পানি নেই কেন, জানতে চাইলে তিনি বলেন, মোটার পুড়ে গেছে, তাই  পানি নেই।
এবিষয়ে হাকিমপুর স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা তৌহিদ আল হাসান জানান, হাসপাতালের বড় পাম্পটি পুড়ে গেছে। মেরামত চলছে, আশা করছি দুই একের মধ্যে ঠিক হয়ে যাবে। তবে হাসপাতালের কারেন্টর ওয়ালিং গুলো খুবি দুর্বল, এগুলো সংস্কার প্রয়োজন।
সময় নিউজ২৪.কম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *