‘প্লাস্টিকের চাল’ নিয়ে যা বললেন কৃষিমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্কঃ

গাইবান্ধায় প্লাস্টিকের চাল পাওয়ার যে খবর গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে, সেটি ‘সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন’ বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী ড. আবদুর রাজ্জাক। খবর প্রকাশের দুদিনের মাথায় কৃষিমন্ত্রী বলেন, ‘প্লাস্টিকের চালের বিষয়ে যে অভিযোগ উঠেছে, তার কোনো ভিত্তি নেই। আমি সেখানকার ডিসি, ডেপুটি ডিরেক্টরের সঙ্গে কথা বলেছি। তাঁরা সেখানে গিয়েছেন, সেই চাল এনে রান্না করেছেন এবং মুড়ি বানিয়েছেন। কোনোক্রমে প্লাস্টিকের চাল বাস্তবসম্মত নয়।’

আজ বুধবার দুপুরে সচিবালয়ে ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার কৃষিমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। পরে তিনি সেখানে সংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এক প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন। গত সোমবার বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত খবরে বলা হয়, গাইবান্ধা শহর এলাকার বাসিন্দা রনি মিয়া নতুন বাজার থেকে চাল কিনে চুলায় রান্না বসানোর আগমুহূর্তে সেই চাল নিয়ে তাঁর সন্দেহ হয়। তাঁর ধারণা হয়, এগুলো ‘প্লাস্টিকের চাল’। পরে তিনি তা নিয়ে সদর থানায় হাজির হন।

পরে পুলিশ বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে (ইউএনও) অবহিত করে। তিনি সঙ্গে সঙ্গে অভিযান পরিচালনার নির্দেশ দেন। পুলিশ ব্যবসায়ী নোমান মিয়ার দোকান থেকে দেড় বস্তা ‘প্লাস্টিকসদৃশ’ চাল জব্দ করে। এবং দোকান সিলগালা করে দেয়। গতকাল মঙ্গলবার জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকেই ‘প্লাস্টিকের চালের’ বিষয়টি ভিত্তিহীন বলে উল্লেখ করা হয়। জেলা প্রশাসক বলেন, এটি হয়তো খুবই নিম্নমানের চাল।    এর মধ্যে আজ কৃষিমন্ত্রী, যিনি নিজেও একজন কৃষিবিদ, বলেন, ‘দেশে কৃষকরা চাল বিক্রি করতে পারছেন না। আমি টাঙ্গাইলে গিয়েছি, হাজার হাজার মানুষ বলেছে, আমরা শেষ হয়ে গেলাম। সেখানে প্লাস্টিকের চালের বিষয়টি অবাস্তব। গাইবান্ধা থেকে ঢাকায়ও পরীক্ষার জন্য চাল পাঠানো হয়েছে। কেন্দ্রীয়ভাবে সেটি আমরা পরীক্ষা করে দেখব। কোনোক্রমেই প্লাস্টিকের চাল বিষয়টি সম্ভব নয়।’

সময়নিউজ২৪.কম/ এ এস আর

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *