বিপিএল মঞ্চ ও গ্যালারির সংস্কার কাজ পরিদর্শন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন এমপি’র

Jetpack

রাজিবুল হক সিদ্দিকী
আগামী ১১ ডিসেম্বর মাঠে গড়াবে বঙ্গবন্ধু বিপিএল। তার আগে ৮ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে হবে জমকালো উদ্বোধনী। পূর্ব গ্যালারির সামনে রোববার থেকে চলছে মঞ্চ বানোনোর কাজ। আসর জমাতে আসার কথা বলিউড সুপারস্টার সালমান খান ও ক্যাটরিনা কাইফের। থাকবেন দেশি-বিদেশি আরও অনেক তারকাই। বিসিবির এ আনন্দ আয়োজন অবশ্য খুব কম দর্শকই মাঠে বসে উপভোগ করতে পারবেন।
আজ মঙ্গলবার বিকেলে অনুষ্ঠানের মঞ্চ ও গ্যালারির সংস্কার কাজ পরিদর্শন শেষে প্রয়াত মহামান্য রাষ্ট্রপতি আলহাজ্ব মো: জিল্লুর রহমান ও নারী আন্দোলনের অগ্রদূত শহীদ আইভি রহমানের সুযোগ্য পুত্র ভৈরব-কুলিয়ারচর নির্বাচনী এলাকার সংসদ সদস্য, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) সফল সভাপতি আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন অনুষ্ঠানের আয়োজনের প্রস্তুতি সম্পর্কে সাংবাদিকদের বলেন, আমরা অল্পসংখ্যক দর্শককে অ্যালাউ করতে পারবো। মঞ্চের পেছনে আসন দিতে পারছি না, পাশেও দিতে পারছি না। আগে যে ধারণ ক্ষমতা ছিল সেটা অনেক কমে গেছে।
মাঠের ভেতরে পিচ নষ্ট হতে পারে বা মাঠ নষ্ট হতে পারে— সে ঝুঁকি তো নিতে পারব না। মাঠের ভেতরে কিছু ভিভিআইপির জন্য চেয়ার দিতে পারব, সেটা আজ ফাইনাল করলাম। ‘দর্শকদের জন্য সব মিলিয়ে ৮ হাজারের বেশি সম্ভব হবে না। এই কর্নার (শহিদ মুস্তাক স্ট্যান্ড) থেকে শুরু করে মিডিয়া বক্স পর্যন্ত দিতে পারছি। মাঠের ভেতরে আর কত চেয়ার দিতে পারব? বড়জোর ১ হাজার। কাউন্সিলর, কাবগুলোকে দিতে হয়।
অন্য টুর্নামেন্টে যা আমরা করি, আগে খেলার জন্য যত টিকিট দিতে পেরেছি এবার তা পারব না। এবার অনেক সীমিত থাকবে। অনেক জায়গায় সংকুচিত হয়ে গেছে। কিন্তু চাহিদা অনেক। কিছু তো দিতে হবে। হাজার পাঁচেক টিকিট সাধারণ দর্শকদের জন্য দেব। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে থাকবেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। উদ্বোধনী ঘোষণার জন্য প্রেসিডেন্ট বক্সের সামনে প্রধানমন্ত্রীর জন্য বানানো হচ্ছে বিশেষ মঞ্চ।
নিরাপত্তার জন্য আশপাশের গ্যালারির কিছু অংশ বরাদ্দ থাকছে না সাধারণ দর্শকদের জন্য। বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের টিকেট কীভাবে পাওয়া যাবে, মূল্য কত হবে সেটি বুধবার ঘোষণা করা হবে বলে জানালেন বিসিবি সভাপতি আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন এমপি।
উলেখ্য, স্টেডিয়ামের দর্শক ধারণমতা ২৬ হাজার হলেও মঞ্চের পেছনে, ডান ও বাঁ-দিকের গ্যালারি কনসার্টের জন্য বরাদ্দ রাখছে না বিসিবি। সম্মুখের গ্র্যান্ড স্ট্যান্ড, ভিআইপি গ্যালারি, শহীদ জুয়েল স্ট্যান্ড ও শহীদ মুস্তাক স্ট্যান্ডে বসতে পারবেন দর্শকরা। মঞ্চের সামনে বসানো হবে হাজারখানেক চেয়ার।
সবমিলিয়ে ৮ হাজার দর্শকের জন্য করা হচ্ছে আয়োজন। যার মধ্যে অন্তত ৩ হাজার সৌজন্য টিকেট চলে যাবে বিসিবি কাউন্সিলর, কাব অফিসিয়াল ও সরকারী কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের ব্যক্তিবর্গের কাছে। সাধারণ দর্শকদের জন্য বরাদ্দ থাকবে ৫ হাজার টিকিট।
সময় নিউজ২৪.কম/এমএম

Jetpack

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *