মহাদেবপুরে মহামারি করোনাকালীন দুর্যোগময় মুহূর্ত্বে সাধারণ মানুষের ভরসা হয়ে দাঁড়িয়েছেন ডা.আনিস

মে.আককাস আলী, নওগাঁ :-

সারাদেশের ন্যায় নওগাঁর মহাদেবপুরেও প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার ভয়ে অনেক নামীদামী ডাক্তাররা যখন রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে অনাগ্রহ প্রকাশ করেছেন, অনেকে নানা অজুহাতে ঘরবন্দী হয়ে রয়েছেন তখন মহাদেবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে অনেকটা স্বেচ্ছায় চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছেন ডা. আনিস। করোনা ভাইরাসের শুরু থেকেই নিজের জীবনের ঝুঁকি থাকা সত্বেও মহাদেবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসা সাধারণ রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছেন। করোনা ভাইরাসের সংকটময় সময়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ড্া. আনিস চিকিৎসা সেবায় অসামান্য অবদান রেখে দৃষ্টান্ত স্থাপন করছেন। তিনি জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রেডিওলজিস্ট বিভাগে চাকুরি করলেও প্রায় ৮ বছর জরুরী বিভাগে রোগীদের চিকিৎসাসেবা দেয়াসহ বর্হি বিভাগে ২ বছর চিকিৎসা দেয়ার অভিজ্ঞতা তার রয়েছে।

এছাড়াও তিনি বিভিন্ন দুর্ঘটনায় আহত রোগিদের জরুরি বিভাগে সেলাই দেয়া, ব্যান্ডেজ করে দেয়া এবং ক্ষেত্র বিশেষে প্লাষ্টার ও করে দিয়ে থাকেন। তার কাছে নিতে আসা রোগির অভিভাবক মো.আককাস আলী জানান, আমার শাশুড়িকে দীর্ঘদিন তিনি চিকিৎসা সেবা দিয়ে সুস্থ করে তুলেছেন। বিনিময়ে কোনদিনও কোনো টাকা পয়সা নেননি। ডা.আনিস জানান, নওগাঁ-৩ এমপি ছলিম উদ্দীন তরফদার স্যারের মায়ের মৃত্যুর আগে অসুস্থ হলে তাকেও তিনি দীর্ঘদিন তার বাসায় গিয়ে চিকিৎসা সেবা দিয়েছেন। তিনি রেডিওলজিস্ট হলেও দীর্ঘদিনের অভিজ্ঞতায় মানুষের বিপদকালীন মূহূর্ত্বে অর্থোপেডিক এর কাজ করে দিয়ে মানুষের উপকারই করে থাকেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি জানান, আমার আরএমপিসহ অন্যান্য প্রশিক্ষণ রয়েছে, যে কারণে মানুষ বিপদে পড়লে বা ডাক্তার না থাকলে জরুরি চিকিৎসাসেবা বা প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা প্রদান করে থাকি। তবে নিজেকে কখনই অর্থোপেডিক ডাক্তার পরিচয় দিয়ে নয়। তবে মহামারী করোনা ভাইরাসে ডাক্তার সংকটের কারণে নিজের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে মানুষের সেবা করে যাচ্ছেন এই আরএমপি প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ডা.আনিস।

সময় নিউজ২৪.কম/এমএম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *