মানবতার সেবার এক বিরল দৃষ্টান্ত আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম

মানুষ মানুষের জন্য,জীবন জীবনের জন্য,একটুকু সহানুভূতি কি মানুষ পেতে পারে না। সমাজের বৃত্তবানদের নিকট এমনটা আশাকরে সাধারন মানুষ। এমন একটি মহৎ কাজের উদ্যোগ গ্রহন করে  বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন কুমিল্লা মহানগরীর ১৭নংওয়ার্ডে সুজানগর পশ্চিম পাড়া হাজীবাড়ি নিবাসী সোনালি ব্যাংকের সাবেক প্রন্সিপাল অফিসার আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম সরদার, সমাজের সাধারণ মানুষের দুঃখ দুর্দশার কথা চিন্তা করে প্রতিষ্ঠা করেন শাহ আব্দুল আজিজ ফাউন্ডেশন। তিনি তার একান্ত ব্যাক্তিগত ফান্ড থেকে এ প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করবেন।
উক্ত অনুষ্ঠানে উদ্বোধনি আলোচনা করেন প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান, আলহাজ্ব নজরুল ইসলাম  আরও আলোচনা করেন কসবা টিআলী ডিগ্রি কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোঃ শাহাদাত হোসেন সরকার।বিশিষ্ট সমাজ সেবক মো হানিফ বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী  মোঃ সাইফুল ইসলাম, বাক্সিমুল ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মো জামশেদ আলম, বিশিষ্ট সমাজ সেবক সাংবাদিক তৌহিদ হোসেন সরকার,ফাউন্ডেশন সেক্রেটারী মোঃ নুরুন্নবী পাপন সহ এলাকার বিশিষ্ট ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।অনুষ্ঠানের উপস্থাপনা করেন বিশিষ্ট সমাজ সেবক এস এম কলিমুল্লাহ।প্রোগ্রাম শেষে নগদ টাকা ও বিরিয়ানির পেকেট বিতরন করা হয়।
প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান তার বক্তব্যে বলেন আমার দাদা হাজী আক্রাম আলী সহ পূর্ব পুরুষেরা সমাজের নানাবিধ উন্নয়নে কাজ করছে তার ধারাবাহিকতায় আমার বাবা শাহ আব্দুল আজিজ এবং আমি নজরুল ইসলাম সাধারণ মানুষের খেদমত করে আসছি।আমার বড় মেয়ে মিশনারী স্কুল শিক্ষিকা  জামাতা সহকারী অধ্যাপক ছোট মেয়ে   সপরিবারে গ্রীসে সেটেল।
আমার একমাত্র ছেলে মোঃ নুরুন্নবী পাপন আমি,আমার পারিবারিক সদস্যদের জাকাত এবং বিশেষ সহযোগিতা একসাথে করে শাহ আব্দুল আজিজ ফাউন্ডেশন নামে প্রতিষ্ঠান করার আশা পোষন করিলে।পরিবারের সদস্য বৃন্দু সহমত পোষন করে, এবং  আমি অছিয়ত করছি আমার ওফাতের পর এ ফাউন্ডেশন সমাজের কল্যালে স্থায়ী ভাবে কাজ করে যাবে।
আমি নিজে আমাদের সমাজের বাছাইকৃত একান্ত সমাস্যাগ্রস্থ বিধবা, বৃদ্ধ, বৃদ্ধা, প্রতিবন্ধি, অসহায় ইত্যাদি যাচাই-বাছাই করে প্রায় একশত জনের নাম তালিকা করেছি যারা আপনারাএ খানে বেশিরভাগ উপস্থিত আছেন।
তিনি আরও বলেন আমি এ ফাউন্ডেশন সমাজের সাধারণ মানুষের সুখ দুঃখের সাথী হিসেবে পরিচালিত করব ইনশাআল্লাহ আমার ছেলে মোঃ নুরুন্নবী পাপন নেতৃত্ব দিয়ে এটিকে  প্রাতিষ্ঠানিক ভাবে দাড় করাবে।সর্বপরি তিনি বলেন প্রিয় এলাকাবাসী আমি কোন রাজনীতি করিনা নির্বাচনও করবনা দুঃখী মানুষের সেবাই আমার কাজ যদি কেউ এটাকে রাজনীতি মনে করেন তাহলে এটাই আমার রাজনীতি। সমাজ সেবক মো হানিফ মিয়া বলেন মহানগরীর ১৭নং ওয়র্ডে এমন একটি মহৎ কাজের মাধ্যমে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপিত হল।সুবিধা ভোগী সাধারন মানুষেরা খবই খুশি এবংআনন্দ অশ্রুজলে দুহাত তুলে আল্লাহর দরবারে মনের অনুভুতি প্রকাশ করে পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে আরম্ভ করে নগদ টাকা অনুদান এবং বিরিয়ানির পেকেট বিতরনের মাধ্যমে প্রোগ্রাম শেষ করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *