মোংলায় নিজের ডাম্পার ট্রলিতে প্রাণ গেলো ড্রাইভার আবদুল্লার

মোংলা প্রতিনিধি:

নির্মানাধীন মোংলা-খুলনা রেল লাইনে কাজ করার সময় দূর্ঘটনায় আবদুল্লাহ সরদার (২৭) নামে এক ডাম্পার ট্রলি ড্রাইভার মারা গেছেন।শনিবার (২৩ জানুয়ারী) সন্ধার দিকে মোংলা বন্দরের ইপিজেড এলাকায় রেল লাইন সংযোগ স্থাপনে এই দূর্ঘটনা ঘটে।নিহত আবদুল্লাহ সরদার রেল লাইন সংযোগ ভারতীয় ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান ইরকন গ্রুপে ডাম্পার ট্রলি ড্রাইভার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। নিহত ড্রাইভার আবদুল্লাহ যশোরের বাঘাপাড়া উপজেলার নারকেল বাড়ির রব্বানী সরদারের ছেলে বলে জানা গেছে।

মোংলা থানার পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানান, শনিবার বিকেলে ট্রলিতে করে পাথর আনছিল আবদুল্লাহ। সন্ধার দিকে ট্রলি ভর্তি করে পাথার নিয়ে আসার সময় বন্দর সংলগ্ন ইপিজেড এলাকায় নিজের ওই ডাম্পার ট্রলি বিকল হয়ে পড়ে। পরে ট্রলিটি থামিয়ে সেটি মেরামত করতে গেলে ট্রলির হাইড্রলিকে তার মাথা চাপা পড়ে। এসময় ঘটনাস্থলে মারা যান
ওই ট্রলি ড্রাইভার আবদুল্লাহ। পরে ইপিজেড ফায়ার সার্ভিসের ইউনিট তাকে দ্রুত উদ্ধার করে।

ফায়ার সার্ভিসের ষ্টেশন কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আহম্মোদ জানান, নিহত আবদুল্লাহ যশোরের বাঘাপাড়া থেকে এসে মোংলা-খুলনা নতুন সংযোগের রেল লাইনে নিজের ডাম্পার ট্রলিতে পাথর বহনের কাজ করতেন। শনিবার সন্ধ্যার দিকে হাইড্রোরিকের চাপাঁ খেয়ে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

মোংলা থানা পুলিশের সেকেন্ড অফিসার মোঃ জাহাঙ্গির আলম জানায়, লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। সুরাতহাল রিপোর্ট তৈরী করে তার মরদেহ মোংলা বন্দর হাসপাতালের রাখা হয়ছে। পরিবারের লোকজনকে খবর দেয়া হয়েছে এবং থানায় ইউডি মামলা হয়েছে। আগামী দিন সকালে ময়না তদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠানো হবে বলে জানায় পুলিশের এ কর্মকর্তা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *